ঢাকা ০৯:৫৬ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৫ এপ্রিল ২০২৪, ২ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

আফগান শরণার্থীদের আশ্রয় দিন, ইমরান খানকে মালালার চিঠি

  • Golam Faruk
  • প্রকাশিত: ০৪:১৪:৩১ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৭ অগাস্ট ২০২১
  • 26

কাবুল দখলে নেওয়ার পর আফগানিস্তানের বেসামরিক লোকজন উদ্বেগ-উৎকণ্ঠার মধ্য দিয়ে দিন পার করছেন। অনেকে দেশান্তরী হচ্ছেন। আফগান শরণার্থীদের আশ্রয় দিতে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে অনুরোধ করেছেন দেশটির নোবেলজয়ী মানবাধিকারকর্মী মালালা ইউসুফজাই।

সোমবার এক বিবৃতিতে মালালা জানান, তিনি পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীকে চিঠি পাঠিয়েছেন। আফগানিস্তানের উদ্বাস্তু ও শরণার্থীদের আশ্রয় দিতে প্রধানমন্ত্রীকে অনুরোধ করেছেন। আফগানিস্তানের শিশুদের শিক্ষা ও নিরাপত্তা দেওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন, যাতে তাদের ভবিষ্যৎ হারিয়ে না যায়।

আফগানিস্তানের সঙ্গে পাকিস্তানের দীর্ঘ সীমান্ত রয়েছে। ইতোমধ্যে পাকিস্তানে কয়েক লাখ আফগান শরণার্থী বছরের পর বছর অবস্থান করছেন। সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান সাফ জানিয়ে দিয়েছেন, তার দেশে জায়গা দেওয়ার মতো আর সামর্থ্য নেই। এর মধ্যেই মালালা নতুন করে আফগান শরণার্থীদের জায়গা দিতে ইমরান খানকে চিঠি লিখলেন। তবে এখনও পাকিস্তানের পক্ষ থেকে মালালার চিঠির কোনো প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি।

২৩ বছর বয়সি মালালা ইউসুফজাই মানবাধিকার রক্ষায় কাজ করছেন। বিশেষ করে নারী অধিকার ও শিক্ষার কাজে অবদান রাখছেন তিনি। কারণ নারী শিক্ষাবিরোধী প্রচারণার বাইরে গিয়ে স্কুলে যাওয়ায় ২০১২ সালে তালেবানের হামলার শিকার হয়েছিলেন তিনি। সেই সময় তালেবান জঙ্গিরা তার মাথায় গুলি করেছিল। পরে অবশ্য চিকিৎসা নিয়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসেন তিনি।

বিবিসির নিউজ নাইটে মালালা আরও বলেন, আফগানিস্তানের বর্তমান পরিস্থিতি নিয়ে আমি গভীরভাবে উদ্বিগ্ন। বিশেষ করে সেখান নারী ও কিশোরী মেয়েদের নিরাপত্তা নিয়ে আমি উদ্বিগ্ন।

বিষয় :
প্রতিবেদক সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য

Golam Faruk

জনপ্রিয়

আফগান শরণার্থীদের আশ্রয় দিন, ইমরান খানকে মালালার চিঠি

প্রকাশিত: ০৪:১৪:৩১ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৭ অগাস্ট ২০২১

কাবুল দখলে নেওয়ার পর আফগানিস্তানের বেসামরিক লোকজন উদ্বেগ-উৎকণ্ঠার মধ্য দিয়ে দিন পার করছেন। অনেকে দেশান্তরী হচ্ছেন। আফগান শরণার্থীদের আশ্রয় দিতে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে অনুরোধ করেছেন দেশটির নোবেলজয়ী মানবাধিকারকর্মী মালালা ইউসুফজাই।

সোমবার এক বিবৃতিতে মালালা জানান, তিনি পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীকে চিঠি পাঠিয়েছেন। আফগানিস্তানের উদ্বাস্তু ও শরণার্থীদের আশ্রয় দিতে প্রধানমন্ত্রীকে অনুরোধ করেছেন। আফগানিস্তানের শিশুদের শিক্ষা ও নিরাপত্তা দেওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন, যাতে তাদের ভবিষ্যৎ হারিয়ে না যায়।

আফগানিস্তানের সঙ্গে পাকিস্তানের দীর্ঘ সীমান্ত রয়েছে। ইতোমধ্যে পাকিস্তানে কয়েক লাখ আফগান শরণার্থী বছরের পর বছর অবস্থান করছেন। সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান সাফ জানিয়ে দিয়েছেন, তার দেশে জায়গা দেওয়ার মতো আর সামর্থ্য নেই। এর মধ্যেই মালালা নতুন করে আফগান শরণার্থীদের জায়গা দিতে ইমরান খানকে চিঠি লিখলেন। তবে এখনও পাকিস্তানের পক্ষ থেকে মালালার চিঠির কোনো প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি।

২৩ বছর বয়সি মালালা ইউসুফজাই মানবাধিকার রক্ষায় কাজ করছেন। বিশেষ করে নারী অধিকার ও শিক্ষার কাজে অবদান রাখছেন তিনি। কারণ নারী শিক্ষাবিরোধী প্রচারণার বাইরে গিয়ে স্কুলে যাওয়ায় ২০১২ সালে তালেবানের হামলার শিকার হয়েছিলেন তিনি। সেই সময় তালেবান জঙ্গিরা তার মাথায় গুলি করেছিল। পরে অবশ্য চিকিৎসা নিয়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসেন তিনি।

বিবিসির নিউজ নাইটে মালালা আরও বলেন, আফগানিস্তানের বর্তমান পরিস্থিতি নিয়ে আমি গভীরভাবে উদ্বিগ্ন। বিশেষ করে সেখান নারী ও কিশোরী মেয়েদের নিরাপত্তা নিয়ে আমি উদ্বিগ্ন।