ঢাকা ০৯:২২ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৯ মে ২০২৪, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

আ ক ম মোজাম্মেল হকের মুক্তিযুদ্ধে অংশ নেওয়ার প্রমাণ চাইলেন ফখরুল

  • Golam Faruk
  • প্রকাশিত: ০৬:৩৪:০৪ অপরাহ্ন, বুধবার, ১ সেপ্টেম্বর ২০২১
  • 49

বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমানের লাশ নিয়ে কথা বলার আগে মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হককে মুক্তিযুদ্ধে অংশ নেওয়ার প্রমাণ দিতে বললেন দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। আজ বুধবার (১ সেপ্টেম্বর) বিএনপির ৪৩তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে দলের প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমানের মাজারে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন তিনি।

মির্জা ফখরুল বলেন, গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার ও বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তি এখন দলের কাছে সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ এবং মিথ্যা মামলায় কারারুদ্ধ করে গৃহ অন্তরিন করে রাখা হয়েছে তাকে। বর্তমানে দেশে ছদ্মবেশে একদলীয় স্বৈরাচার সরকার পরিচালিত হচ্ছে এ কথা জানিয়ে মির্জা ফখরুল বলেন, কর্মসূচি পালনে জিয়ার সমাধিতে আসতেও বাধা দিয়েছে সরকার ও প্রশাসন। তিনি জিয়াউর রহমান বাংলাদেশের সঙ্গে অবিচ্ছেদ্য অংশ তাকে নিয়ে সমালোচনা, তার মরদেহ নিয়ে কটূক্তি এমন বক্তব্য জাতির জন্য দুর্ভাগ্য ছাড়া আর কিছু নয়।

তিনি বলেন, দেশে গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার করা বিএনপির জন্য এখন বড় চ্যালেঞ্জ। বিএনপি ৪৩ বছরে সংগ্রাম করেছে, লড়াই করেছে। এ লড়াই সংগ্রামের মধ্য দিয়েই বিএনপি আজকে ৪৪ বছরে পা দিয়েছে। আজকে বিএনপির লাখ লাখ নেতাকর্মীর নামে মিথ্যা মামলা ও পাঁচ শতাধিক নেতাকর্মীকে গুম করা হয়েছে। হত্যা করা হয়েছে সহস্রাধিক নেতাকে।

তিনি আরও বলেন, এতকিছুর পরও বিএনপি অত্যন্ত দৃঢ়ভাবে নিজের পায়ের ওপর দাঁড়িয়ে আছে। আমরা সীমিত পরিসরে আমাদের কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছি, দলকে সংগঠিত করছি, সাধারণ মানুষের দাবি-দাওয়া নিয়ে রাস্তায় আন্দোলন করছি। এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, জিয়াউর রহমানের কবর এবং তার মরদেহ নিয়ে যারা কথা বলে, এসব বিষয়ে কথা বলতে আমাদের রুচিতে বাধে। এটা জাতির দুর্ভাগ্য স্বাধীনতার ঘোষক জিয়াউর রহমানের বিরুদ্ধে এসব কথা বলা হয়।

মির্জা ফখরুল বলেন, আমরা খুব পরিষ্কার ভাষায় বলতে চাই, শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানের জাতির সঙ্গে অবিচ্ছেদ্যভাবে জড়িত। তার ঘোষণার মধ্য দিয়ে দেশের স্বাধীনতার আন্দোলন শুরু হয়েছে। সুতরাং তাকে বাদ দিয়ে বাংলাদেশের অস্তিত্ব চিন্তা করা যায় না।

বিষয় :
প্রতিবেদক সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য

Golam Faruk

জনপ্রিয়

আ ক ম মোজাম্মেল হকের মুক্তিযুদ্ধে অংশ নেওয়ার প্রমাণ চাইলেন ফখরুল

প্রকাশিত: ০৬:৩৪:০৪ অপরাহ্ন, বুধবার, ১ সেপ্টেম্বর ২০২১

বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমানের লাশ নিয়ে কথা বলার আগে মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হককে মুক্তিযুদ্ধে অংশ নেওয়ার প্রমাণ দিতে বললেন দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। আজ বুধবার (১ সেপ্টেম্বর) বিএনপির ৪৩তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে দলের প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমানের মাজারে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন তিনি।

মির্জা ফখরুল বলেন, গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার ও বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তি এখন দলের কাছে সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ এবং মিথ্যা মামলায় কারারুদ্ধ করে গৃহ অন্তরিন করে রাখা হয়েছে তাকে। বর্তমানে দেশে ছদ্মবেশে একদলীয় স্বৈরাচার সরকার পরিচালিত হচ্ছে এ কথা জানিয়ে মির্জা ফখরুল বলেন, কর্মসূচি পালনে জিয়ার সমাধিতে আসতেও বাধা দিয়েছে সরকার ও প্রশাসন। তিনি জিয়াউর রহমান বাংলাদেশের সঙ্গে অবিচ্ছেদ্য অংশ তাকে নিয়ে সমালোচনা, তার মরদেহ নিয়ে কটূক্তি এমন বক্তব্য জাতির জন্য দুর্ভাগ্য ছাড়া আর কিছু নয়।

তিনি বলেন, দেশে গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার করা বিএনপির জন্য এখন বড় চ্যালেঞ্জ। বিএনপি ৪৩ বছরে সংগ্রাম করেছে, লড়াই করেছে। এ লড়াই সংগ্রামের মধ্য দিয়েই বিএনপি আজকে ৪৪ বছরে পা দিয়েছে। আজকে বিএনপির লাখ লাখ নেতাকর্মীর নামে মিথ্যা মামলা ও পাঁচ শতাধিক নেতাকর্মীকে গুম করা হয়েছে। হত্যা করা হয়েছে সহস্রাধিক নেতাকে।

তিনি আরও বলেন, এতকিছুর পরও বিএনপি অত্যন্ত দৃঢ়ভাবে নিজের পায়ের ওপর দাঁড়িয়ে আছে। আমরা সীমিত পরিসরে আমাদের কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছি, দলকে সংগঠিত করছি, সাধারণ মানুষের দাবি-দাওয়া নিয়ে রাস্তায় আন্দোলন করছি। এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, জিয়াউর রহমানের কবর এবং তার মরদেহ নিয়ে যারা কথা বলে, এসব বিষয়ে কথা বলতে আমাদের রুচিতে বাধে। এটা জাতির দুর্ভাগ্য স্বাধীনতার ঘোষক জিয়াউর রহমানের বিরুদ্ধে এসব কথা বলা হয়।

মির্জা ফখরুল বলেন, আমরা খুব পরিষ্কার ভাষায় বলতে চাই, শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানের জাতির সঙ্গে অবিচ্ছেদ্যভাবে জড়িত। তার ঘোষণার মধ্য দিয়ে দেশের স্বাধীনতার আন্দোলন শুরু হয়েছে। সুতরাং তাকে বাদ দিয়ে বাংলাদেশের অস্তিত্ব চিন্তা করা যায় না।